Warning: Cannot modify header information - headers already sent by (output started at /var/sites/f/friendsblog.net/public_html/index.php:43) in /var/sites/f/friendsblog.net/public_html/wp-content/plugins/wp-super-cache/wp-cache-phase2.php on line 58
যাদুর শহরের মেয়েরা!

যাদুর শহরের মেয়েরা!

Loading...

nari11এটা যাদুর শহর- এখানে প্রতিনিয়ত যাদু দেখা যায়। যদিও যাদু দেখতে তৃতীয় চোখের প্রয়োজন, যে চোখ সবার নেই। যাদের আছে তারাই যাদুকর। সেই তৃতীয় চোখে দেখা যাদু চলে আসে একজন লেখকের গল্পে।

তারপর নিমার্তার নির্মাণে। এরপর শিল্পীর অভিনয়ে। এ সব যাদু একত্রে পর্দায় দেখে দর্শক বলে বাহ। কি সুন্দর! এমন একটা গল্পের নাম ‘তিন কন্যা’।

 

 

যাদুর শহরের বাসিন্দা তারা। মুনিয়া, সাফা, রায়সা। এদের রয়েছে রুপের যাদু। রুপের যাদু বড়ই যাদু। এই যাদুর শহরের ‘তিন কন্যা’র গল্প নিয়েই এগিয়ে যায় আমাদের গল্প। নির্মাতা আশুতোষ সুজনের নির্মানের যাদু দেখা যাবে পর্দায়। বাকিটা তিন কন্যার যাদুর উপর। যা দেখে দর্শক বলবে বাহ! কি সুন্দর।

 

 

মুনিয়া: বড়লোকের একমাত্র কন্যা। দেখতে সুন্দরী। তবে ভীষন দুষ্টু। সারাদিন ফেসবুকে চ্যাটিং, ছেলেদের সঙ্গে ফোনে কথা বলা। মোটকথা তার সারাদিন মাস্তি করেই সময় পার করে এই যাদুর শহরে। মিষ্টি হাসি অধিকারী এই কন্যার আসল নাম তারিন রহমান।

সাফা: বাবা-মায়ের আদরের সন্তান তিনি। চোখে মোটা কালো চশমা দিয়ে দেখে সে। প্রচুর পড়াশোনা নিয়ে ব্যস্ত থাকে। সর্বমোট পরীক্ষার নাম্বার যদি ২০ হয় আর সেখানে যদি সে ১৮ পায় তাহলেই তার মন খারাপ হয়ে যায়। সিলেট থেকে এসে মুনিয়ার বাসা ভাড়া নেয় সে। লক্ষ একটাই পড়াশোনা। তার আসলে নাম সাফা কবির।

 

 

রায়সা: মফেস্বল থেকে এই শহরে এসে ভাড়া নিয়েছেন মুনিয়ার বাসায়। নম্র, ভদ্র দেখে সুন্দরী। ভাল বা খারাপ কোনটাই তিনি বুঝতে পারেরনা না। তাই এই যাদুর শহরে তার চলা মুশকিল হয়ে যায়। তার আসল নাম তানজিন তিশা।

 

 

এই ‘তিন কন্যা’র গল্প নিয়েই নির্মাতা আশুতোষ সুজন একটি দীর্ঘ ধারাবাহিক নির্মাণ শুরু করেছেন বাংলাভিশনের জন্য। এতে আরও অভিনয় করেছেন সুজানা জাফর, নিলয়, মৌসুমী হামিদ, আবুল হায়াত, শামীমা নাজনীন, শামীমা তুষ্টি, সালমান মুক্তাদির, আনিসুল হক বরুণ প্রমুখ। (প্রিয়.কম)

Loading...